ঢাকা ০১:১৫ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১২ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

শারদীয় দুর্গাপূজা উপলক্ষ্যে সার্বিক আইন-শৃঙ্খলা নিয়ন্ত্রণে আরএমপি’র মতবিনিময় সভা

  • নিজস্ব প্রতিবেদক
  • আপডেট সময় ০৫:০৪:৩৭ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০২২
  • ২২৭ বার পড়া হয়েছে

ফাইল ছবি।

রাজশাহী মহানগরীতে আসন্ন শারদীয় দুর্গাপূজা ২০২২ উপলক্ষ্যে নিরাপত্তা ও আইন-শৃঙ্খলা নিয়ন্ত্রণসহ সার্বিক বিষয়ে মহানগরীর বিভিন্ন পূজা কমিটির নেতৃবৃন্দের সাথে আরএমপি’র মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।
আজ ২২ সেপ্টেম্বর ২০২২ সকাল ১০.৩০ ঘটিকায় আরএমপি পুলিশ লাইন্স পিওএম কনফারেন্স রুমে অনুষ্ঠিত মতবিনিময় সভায় সভাপতিত্ব করেন আরএমপি’র সম্মানিত পুলিশ কমিশনার মো: আবু কালাম সিদ্দিক মহোদয়।
এবার রাজশাহী মহানগরী এলাকায় পূজামন্ডপের সংখ্যা ৯৫ টি। আসন্ন শারদীয় দুর্গাপূজা-২০২২ উদযাপন উপলক্ষ্যে আইন শৃঙ্খলা সংক্রান্তে মতবিনিময় সভায় রাজশাহী মহানগরী এলাকার আইন শৃংখলা পরিস্থিতি যেন স্বাভাবিক থাকে ও প্রতিমা প্রস্তুত করণ, প্রতিমা প্রস্তুত কালীন এবং পূজা চলাকালীন নিরাপত্তার বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা হয়। সভায় উপস্থিত হিন্দু সম্প্রদায়ের নেতৃবৃন্দ আইন শৃংখলা সংক্রান্ত বিভিন্ন বিষয়ে পরামর্শ প্রদান করেন।
পুলিশ কমিশনার মহোদয় তাঁর বক্তব্যে বলেন, দুর্গাপূজাকে কেন্দ্র করে আরএমপি’র পক্ষ থেকে সার্বিক নিরাপত্তা ব্যবস্থা থাকবে এবং ইতোমধ্যে গোয়েন্দা তৎপরতা বাড়ানো হয়েছে। তিনি গুরুত্বপূর্ণ পূজামন্ডপগুলোতে সিসি ক্যামেরা স্থাপনের জন্য নেতৃবৃন্দকে আহবান জানান। পূজামন্ডপ গুলোতে পুরুষ ও নারীদের জন্য পৃথক প্রবেশ ও নির্গমণ লাইন রাখার এবং পূজা মন্ডপে পুরুষ ও মহিলা আলাদা আলাদা স্বেচ্ছাসেবক রাখার উপর বিশেষভাবে গুরুত্বারোপ করেন। থানার অফিসার ইনচার্জগণকে পূজা কমিটির সাথে সার্বক্ষণিক যোগাযোগ রাখার নির্দেশ প্রদান করেন এবং ট্রাফিক বিভাগকে ট্রাফিক ব্যবস্থাপনা জোরদার করার জন্য নির্দেশ প্রদান করেন। যাতে করে দর্শনার্থীরা নির্ভিঘ্নে পূজামন্ডপ দর্শণ করতে পারে।
উক্ত সভায় উপস্থিত ছিলেন, অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (প্রশাসন) মো: ফারুক হোসেন, উপ-পুলিশ কমিশনার (সদর) মো: সাইফউদ্দীন শাহীন, উপ-পুলিশ কমিশনার (ট্রাফিক) অর্নিবান চাকমা, আরএমপি’র ঊর্ধ্বতন পুলিশ অফিসারবৃন্দ, ডিজিএফআই , র্যা ব-৫, এনএসআই, আনসার ও ভিডিপি, ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সে, সিটি কর্পোরেশন, নেশকো লিঃ, মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রন অধিদপ্তর এর প্রতিনিধিবৃন্দ সহ সকল থানার অফিসার ইনচার্জগণ এবং টিআই (১)।
এছাড়াও অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন, তপন কুমার সেন, ট্রাষ্টি, হিন্দু কল্যাণ ট্রাষ্ট, বৃহত্তর রাজশাহী, অনিল কুমার সরকার ভারপ্রাপ্ত সভাপতি, রাজশাহী জেলা আওয়ামীলীগ ও চেয়ারম্যান, বাগমারা উপজেলা, রাজশাহী এবং শ্যামল কুমার ঘোষ সেক্রেটারী, হিন্দু, বৌদ্ধ খ্রিষ্ট্রান ঐক্য পরিষদ রাজশাহী মহানগর, সাধন কুমার রায় সিনিয়র সভাপতি, বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ, রাজশাহী মহানগর, পার্থ পাল চৌধুরী সাধারণ সম্পাদক, বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ, রাজশাহী মহানগর-সহ পূজা উদযাপন কমিটি রাজশাহী মহানগর ও পবার নেতৃত্ববৃন্দ।
আপলোডকারীর তথ্য

কামাল হোসাইন

হ্যালো আমি কামাল হোসাইন, আমি গাইবান্ধা জেলা প্রতিনিধি হিসেবে কাজ করছি। ২০১৭ সাল থেকে এই পত্রিকার সাথে কাজ করছি। এভাবে এখানে আপনার প্রতিনিধিদের সম্পর্কে কিছু লিখতে পারবেন।
জনপ্রিয় সংবাদ

পিবিআই রাজশাহীতে মামলা তদন্ত ও প্রতিবেদন দাখিল ওয়ার্কশপ অনুষ্ঠিত

শারদীয় দুর্গাপূজা উপলক্ষ্যে সার্বিক আইন-শৃঙ্খলা নিয়ন্ত্রণে আরএমপি’র মতবিনিময় সভা

আপডেট সময় ০৫:০৪:৩৭ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০২২
রাজশাহী মহানগরীতে আসন্ন শারদীয় দুর্গাপূজা ২০২২ উপলক্ষ্যে নিরাপত্তা ও আইন-শৃঙ্খলা নিয়ন্ত্রণসহ সার্বিক বিষয়ে মহানগরীর বিভিন্ন পূজা কমিটির নেতৃবৃন্দের সাথে আরএমপি’র মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।
আজ ২২ সেপ্টেম্বর ২০২২ সকাল ১০.৩০ ঘটিকায় আরএমপি পুলিশ লাইন্স পিওএম কনফারেন্স রুমে অনুষ্ঠিত মতবিনিময় সভায় সভাপতিত্ব করেন আরএমপি’র সম্মানিত পুলিশ কমিশনার মো: আবু কালাম সিদ্দিক মহোদয়।
এবার রাজশাহী মহানগরী এলাকায় পূজামন্ডপের সংখ্যা ৯৫ টি। আসন্ন শারদীয় দুর্গাপূজা-২০২২ উদযাপন উপলক্ষ্যে আইন শৃঙ্খলা সংক্রান্তে মতবিনিময় সভায় রাজশাহী মহানগরী এলাকার আইন শৃংখলা পরিস্থিতি যেন স্বাভাবিক থাকে ও প্রতিমা প্রস্তুত করণ, প্রতিমা প্রস্তুত কালীন এবং পূজা চলাকালীন নিরাপত্তার বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা হয়। সভায় উপস্থিত হিন্দু সম্প্রদায়ের নেতৃবৃন্দ আইন শৃংখলা সংক্রান্ত বিভিন্ন বিষয়ে পরামর্শ প্রদান করেন।
পুলিশ কমিশনার মহোদয় তাঁর বক্তব্যে বলেন, দুর্গাপূজাকে কেন্দ্র করে আরএমপি’র পক্ষ থেকে সার্বিক নিরাপত্তা ব্যবস্থা থাকবে এবং ইতোমধ্যে গোয়েন্দা তৎপরতা বাড়ানো হয়েছে। তিনি গুরুত্বপূর্ণ পূজামন্ডপগুলোতে সিসি ক্যামেরা স্থাপনের জন্য নেতৃবৃন্দকে আহবান জানান। পূজামন্ডপ গুলোতে পুরুষ ও নারীদের জন্য পৃথক প্রবেশ ও নির্গমণ লাইন রাখার এবং পূজা মন্ডপে পুরুষ ও মহিলা আলাদা আলাদা স্বেচ্ছাসেবক রাখার উপর বিশেষভাবে গুরুত্বারোপ করেন। থানার অফিসার ইনচার্জগণকে পূজা কমিটির সাথে সার্বক্ষণিক যোগাযোগ রাখার নির্দেশ প্রদান করেন এবং ট্রাফিক বিভাগকে ট্রাফিক ব্যবস্থাপনা জোরদার করার জন্য নির্দেশ প্রদান করেন। যাতে করে দর্শনার্থীরা নির্ভিঘ্নে পূজামন্ডপ দর্শণ করতে পারে।
উক্ত সভায় উপস্থিত ছিলেন, অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (প্রশাসন) মো: ফারুক হোসেন, উপ-পুলিশ কমিশনার (সদর) মো: সাইফউদ্দীন শাহীন, উপ-পুলিশ কমিশনার (ট্রাফিক) অর্নিবান চাকমা, আরএমপি’র ঊর্ধ্বতন পুলিশ অফিসারবৃন্দ, ডিজিএফআই , র্যা ব-৫, এনএসআই, আনসার ও ভিডিপি, ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সে, সিটি কর্পোরেশন, নেশকো লিঃ, মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রন অধিদপ্তর এর প্রতিনিধিবৃন্দ সহ সকল থানার অফিসার ইনচার্জগণ এবং টিআই (১)।
এছাড়াও অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন, তপন কুমার সেন, ট্রাষ্টি, হিন্দু কল্যাণ ট্রাষ্ট, বৃহত্তর রাজশাহী, অনিল কুমার সরকার ভারপ্রাপ্ত সভাপতি, রাজশাহী জেলা আওয়ামীলীগ ও চেয়ারম্যান, বাগমারা উপজেলা, রাজশাহী এবং শ্যামল কুমার ঘোষ সেক্রেটারী, হিন্দু, বৌদ্ধ খ্রিষ্ট্রান ঐক্য পরিষদ রাজশাহী মহানগর, সাধন কুমার রায় সিনিয়র সভাপতি, বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ, রাজশাহী মহানগর, পার্থ পাল চৌধুরী সাধারণ সম্পাদক, বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ, রাজশাহী মহানগর-সহ পূজা উদযাপন কমিটি রাজশাহী মহানগর ও পবার নেতৃত্ববৃন্দ।