ঢাকা ০৬:০৭ অপরাহ্ন, শনিবার, ২২ জুন ২০২৪, ৮ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ব্রাশ করার পরও দাঁত হলুদ থাকার কারণ ও সমাধান

প্রতিদিন ব্রাশ করার পরও দাঁত হলুদ থাকে

মুক্তার মতো ঝকঝকে সাদা দাঁত মুখের আকর্ষণ বাড়ায়। এটি শুধু হাসির সৌন্দর্যই বাড়ায় না সেই সঙ্গে বজায় রাখে ব্যক্তির আত্মবিশ্বাসও।

কিন্তু অনেকের প্রতিদিন ব্রাশ করার পরও দাঁত হলুদ থাকে। যার কারণে কারণে দেখতে খারাপ লাগে। কিছু অভ্যাসের পরিবর্তন ঘটিয়ে দাঁতের হলদে ভাব দূর করে উজ্জ্বলতা বজায় রাখা যায়।

দাঁত হলুদ হওয়ার কারণ-

১. চা, কফি, রেড ওয়াইন, সস এবং টমেটোর মতো খাবার দাঁতে দাগ তৈরি করতে পারে। প্রতিদিন এসব খাবার খেলে দাঁত হলুদ হয়ে যেতে পারে। এ ছাড়া বেশি পরিমাণে অ্যাসিডিক ফল খেলেও দাঁতের এনামেল পাতলা হয়ে যায়। টমেটো, জুস, আনারস ও টক ফলের অ্যাসিড দাঁতের জন্য ক্ষতিকর। হলুদের সমস্যা থেকে মুক্তি পেতে এগুলো সীমিত পরিমাণে খেতে হবে।

২. মাউথওয়াশের অতিরিক্ত ব্যবহারের ফলেও দাঁত হলুদ হয়ে যেতে পারে, কারণ মাউথওয়াশে অ্যাসিড থাকে, যা এনামেলের ক্ষতি করে।

৩. ধূমপান দাঁতে নিকোটিন জমা করে, যা দাঁতকে অনেকাংশে হলুদ করতে পারে।

৪. মিষ্টি খাবার খাওয়া দাঁতের জন্য ক্ষতিকর হতে পারে। চিনিযুক্ত খাবার খেলে এনামেল ক্ষয় হতে পারে, দাঁত হলুদ হয়ে যেতে পারে।

দাঁতের হলদে ভাব দূর করার উপায়-

৫. লেবুতে উপস্থিত সাইট্রিক অ্যাসিড দাঁত সাদা করতে সাহায্য করে। বেকিং সোডা দাঁতে জমা প্লাক এবং টারটার দূর করতে কাজ করে। এর জন্য এক চামচ বেকিং সোডায় কয়েক ফোঁটা লেবুর রস মিশিয়ে পেস্ট তৈরি করুন। এই পেস্টটি আপনার দাঁতে ব্রাশের মতো লাগিয়ে ২ মিনিটের জন্য ধীরে ধীরে ঘষুন। তারপর জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।

৬. নারকেল তেলে উপস্থিত লরিক অ্যাসিড দাঁত সাদা করতে এবং মাড়ি সুস্থ রাখতে সহায়ক। এর জন্য, আপনার মুখে এক চামচ নারকেল তেল রাখুন এবং ১০-১৫ মিনিটের জন্য গার্গল করুন।

৭. স্ট্রবেরিতে উপস্থিত ম্যালিক অ্যাসিডের সাহায্যে দাঁতের হলদে ভাব অনেকাংশে দূর করা যায়। এর জন্য একটি স্ট্রবেরি ম্যাশ করুন। তারপর এই পেস্টটি আপনার দাঁতে লাগিয়ে ২ মিনিট ঘষুন। কিছুক্ষণ পর জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।

৮. হলুদে উপস্থিত অ্যান্টি-ব্যাকটেরিয়াল এবং অ্যান্টি-ইনফ্লেমেটরি বৈশিষ্ট্য দাঁত সাদা করতে এবং মাড়িকে সুস্থ রাখতে সাহায্য করে। এজন্য এক চামচ হলুদ গুঁড়াতে সামান্য পানি মিশিয়ে পেস্ট তৈরি করুন। প্রতিদিন এই পেস্টটি দাঁতে লাগালে হলুদের সমস্যা থেকে অনেকাংশে মুক্তি পাওয়া যায়।

৯. আপেল সিডার ভিনেগারে উপস্থিত অ্যাসিড দাঁত সাদা করতে এবং প্লাক অপসারণে সাহায্য করে। এজন্য এক গ্লাস জলে এক চামচ অ্যাপেল সাইডার ভিনেগার মিশিয়ে নিন। এই মিশ্রণ দিয়ে আপনার মুখ ধুয়ে ফেলুন। এটি দাঁতের হলুদ ভাব কমাতে সাহায্য করতে পারে।

আপলোডকারীর তথ্য

Daily Naba Bani

মিডিয়া তালিকাভুক্ত জাতীয় দৈনিক নববাণী পত্রিকার জন্য সকল জেলা উপজেলায় সংবাদ কর্মী আবশ্যকঃ- আগ্রহীরা আজই আবেদন করুন। মেইল: 24nababani@gmail.com
জনপ্রিয় সংবাদ

সুনামগঞ্জে বন্যা পরিস্থিতির অবনতি, ভোগান্তিতে ৮ লক্ষাধিক মানুষ

ব্রাশ করার পরও দাঁত হলুদ থাকার কারণ ও সমাধান

আপডেট সময় ০৩:২৯:৩৬ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৩ মার্চ ২০২৪

মুক্তার মতো ঝকঝকে সাদা দাঁত মুখের আকর্ষণ বাড়ায়। এটি শুধু হাসির সৌন্দর্যই বাড়ায় না সেই সঙ্গে বজায় রাখে ব্যক্তির আত্মবিশ্বাসও।

কিন্তু অনেকের প্রতিদিন ব্রাশ করার পরও দাঁত হলুদ থাকে। যার কারণে কারণে দেখতে খারাপ লাগে। কিছু অভ্যাসের পরিবর্তন ঘটিয়ে দাঁতের হলদে ভাব দূর করে উজ্জ্বলতা বজায় রাখা যায়।

দাঁত হলুদ হওয়ার কারণ-

১. চা, কফি, রেড ওয়াইন, সস এবং টমেটোর মতো খাবার দাঁতে দাগ তৈরি করতে পারে। প্রতিদিন এসব খাবার খেলে দাঁত হলুদ হয়ে যেতে পারে। এ ছাড়া বেশি পরিমাণে অ্যাসিডিক ফল খেলেও দাঁতের এনামেল পাতলা হয়ে যায়। টমেটো, জুস, আনারস ও টক ফলের অ্যাসিড দাঁতের জন্য ক্ষতিকর। হলুদের সমস্যা থেকে মুক্তি পেতে এগুলো সীমিত পরিমাণে খেতে হবে।

২. মাউথওয়াশের অতিরিক্ত ব্যবহারের ফলেও দাঁত হলুদ হয়ে যেতে পারে, কারণ মাউথওয়াশে অ্যাসিড থাকে, যা এনামেলের ক্ষতি করে।

৩. ধূমপান দাঁতে নিকোটিন জমা করে, যা দাঁতকে অনেকাংশে হলুদ করতে পারে।

৪. মিষ্টি খাবার খাওয়া দাঁতের জন্য ক্ষতিকর হতে পারে। চিনিযুক্ত খাবার খেলে এনামেল ক্ষয় হতে পারে, দাঁত হলুদ হয়ে যেতে পারে।

দাঁতের হলদে ভাব দূর করার উপায়-

৫. লেবুতে উপস্থিত সাইট্রিক অ্যাসিড দাঁত সাদা করতে সাহায্য করে। বেকিং সোডা দাঁতে জমা প্লাক এবং টারটার দূর করতে কাজ করে। এর জন্য এক চামচ বেকিং সোডায় কয়েক ফোঁটা লেবুর রস মিশিয়ে পেস্ট তৈরি করুন। এই পেস্টটি আপনার দাঁতে ব্রাশের মতো লাগিয়ে ২ মিনিটের জন্য ধীরে ধীরে ঘষুন। তারপর জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।

৬. নারকেল তেলে উপস্থিত লরিক অ্যাসিড দাঁত সাদা করতে এবং মাড়ি সুস্থ রাখতে সহায়ক। এর জন্য, আপনার মুখে এক চামচ নারকেল তেল রাখুন এবং ১০-১৫ মিনিটের জন্য গার্গল করুন।

৭. স্ট্রবেরিতে উপস্থিত ম্যালিক অ্যাসিডের সাহায্যে দাঁতের হলদে ভাব অনেকাংশে দূর করা যায়। এর জন্য একটি স্ট্রবেরি ম্যাশ করুন। তারপর এই পেস্টটি আপনার দাঁতে লাগিয়ে ২ মিনিট ঘষুন। কিছুক্ষণ পর জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।

৮. হলুদে উপস্থিত অ্যান্টি-ব্যাকটেরিয়াল এবং অ্যান্টি-ইনফ্লেমেটরি বৈশিষ্ট্য দাঁত সাদা করতে এবং মাড়িকে সুস্থ রাখতে সাহায্য করে। এজন্য এক চামচ হলুদ গুঁড়াতে সামান্য পানি মিশিয়ে পেস্ট তৈরি করুন। প্রতিদিন এই পেস্টটি দাঁতে লাগালে হলুদের সমস্যা থেকে অনেকাংশে মুক্তি পাওয়া যায়।

৯. আপেল সিডার ভিনেগারে উপস্থিত অ্যাসিড দাঁত সাদা করতে এবং প্লাক অপসারণে সাহায্য করে। এজন্য এক গ্লাস জলে এক চামচ অ্যাপেল সাইডার ভিনেগার মিশিয়ে নিন। এই মিশ্রণ দিয়ে আপনার মুখ ধুয়ে ফেলুন। এটি দাঁতের হলুদ ভাব কমাতে সাহায্য করতে পারে।