ঢাকা ০৫:১৫ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ২১ জুন ২০২৪, ৭ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

তিন মাস ধরে উ’ধা’ও আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আরএমও

আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিকেল অফিসার (আরএমও) ডাঃ ফায়জুর রহমান তিন মাস ধরে উধাও রয়েছেন। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ তাকে দুই দফায় শোকজ নোটিশ করলেও তিনি হাসপাতালে যোগদান করেননি।
হাসপাতাল সুত্রে জানাগেছে, আবাসিক মেডিকেল অফিসার হিসেবে ডাঃ ফায়জুর রহমান গত ২৯  ফেব্রুয়ারী আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে  যোগদান করেন। কিন্তু যোগদান করার পরেই তিনি হাসপাতাল কর্তৃপক্ষকে অবহিত না করে চলে যান। গত তিন মাসেও তিনি হাসপাতালে আসেননি। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ তাকে দুই দফায় শোকজ নোটিশ করেছেন। কিন্তু কোথায় আছেন তার হদিস পাচ্ছেন না হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। গত পয়েলা জুন তাকে দ্বিতীয় দফায় শোকজ নোটিশ করা হয়েছে। তিনি হাসপাতালে না আসায় ভোগান্তির স্বীকার হতে হচ্ছে আমতলীর মানুষ। তার হদিস না থাকায় হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ তার বেতনভাতা বন্ধ করে রেখেছেন। ডাঃ ফায়জুর রহমানের বাড়ী ব্রাক্ষণবাড়িয়া জেলায়।
আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ চিন্ময় সিকদার বলেন, আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডাঃ ফায়জুর রহমানকে দুই দফায় শোকজ নোটিশ দেয়া হয়েছে এবং তার বেতনভাতা বন্ধ রাখা হয়েছে।
ট্যাগস :
আপলোডকারীর তথ্য

Daily Naba Bani

মিডিয়া তালিকাভুক্ত জাতীয় দৈনিক নববাণী পত্রিকার জন্য সকল জেলা উপজেলায় সংবাদ কর্মী আবশ্যকঃ- আগ্রহীরা আজই আবেদন করুন। মেইল: 24nababani@gmail.com
জনপ্রিয় সংবাদ

সুনামগঞ্জে বন্যা পরিস্থিতির অবনতি, ভোগান্তিতে ৮ লক্ষাধিক মানুষ

তিন মাস ধরে উ’ধা’ও আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আরএমও

আপডেট সময় ০২:৩৩:০১ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ৫ জুন ২০২৪
আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিকেল অফিসার (আরএমও) ডাঃ ফায়জুর রহমান তিন মাস ধরে উধাও রয়েছেন। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ তাকে দুই দফায় শোকজ নোটিশ করলেও তিনি হাসপাতালে যোগদান করেননি।
হাসপাতাল সুত্রে জানাগেছে, আবাসিক মেডিকেল অফিসার হিসেবে ডাঃ ফায়জুর রহমান গত ২৯  ফেব্রুয়ারী আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে  যোগদান করেন। কিন্তু যোগদান করার পরেই তিনি হাসপাতাল কর্তৃপক্ষকে অবহিত না করে চলে যান। গত তিন মাসেও তিনি হাসপাতালে আসেননি। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ তাকে দুই দফায় শোকজ নোটিশ করেছেন। কিন্তু কোথায় আছেন তার হদিস পাচ্ছেন না হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। গত পয়েলা জুন তাকে দ্বিতীয় দফায় শোকজ নোটিশ করা হয়েছে। তিনি হাসপাতালে না আসায় ভোগান্তির স্বীকার হতে হচ্ছে আমতলীর মানুষ। তার হদিস না থাকায় হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ তার বেতনভাতা বন্ধ করে রেখেছেন। ডাঃ ফায়জুর রহমানের বাড়ী ব্রাক্ষণবাড়িয়া জেলায়।
আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ চিন্ময় সিকদার বলেন, আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডাঃ ফায়জুর রহমানকে দুই দফায় শোকজ নোটিশ দেয়া হয়েছে এবং তার বেতনভাতা বন্ধ রাখা হয়েছে।