ঢাকা ১০:১৫ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৯ মে ২০২৪, ৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ছাত্রদলের দুই নেতাকে রাবি ক্যাম্পাস থেকে মেরে তাড়ালেন ছাত্রলীগ

মারধরের শিকার দুই নেতা

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় (রাবি) শাখা ছাত্রদলের দুই নেতাকে মারধর করে ক্যাম্পাস থেকে বের করে দিয়েছেন শাখা ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা।
বৃহস্পতিবার (০২ নভেম্বর) বেলা সাড়ে ১১টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের অগ্রণী ব্যাংকের সামনে এ ঘটনা ঘটে।
মারধরের শিকার দুই নেতা হলেন-শাখা ছাত্রদলের আহ্বায়ক কমিটির সদস্য জাকির রেদোয়ান ও মহানগর ছাত্রদলের আওতাভুক্ত একটি ওয়ার্ডের সাধারণ সম্পাদক প্রিন্স। বর্তমানে তাদের রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
মারধরের বিষয়ে শাখা ছাত্রদলের আহ্বায়ক কমিটির সদস্য (দপ্তর) নাফিউল ইসলাম জীবন বলেন, ‘বিএনপির অবরোধকে সমর্থন জানিয়ে আমরা ক্যাম্পাসে মিছিল করছিলাম। এমন সময়ে ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা আমাদের ধাওয়া করে এবং আমাদের দুইজন নেতাকে ব্যাপক মারধর করে ক্যাম্পাস থেকে বের করে দেন।
এসময় বিএনপিপন্থী শিক্ষকদের সংগঠন জিয়া পরিষদও মিছিল নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের মেইন গেটের দিকে যায়। অন্যদিকে, রাবি ছাত্রলীগের একটি শোডাউনও একই জায়গায় অবস্থান করছিল।
ছাত্রদলের দুই নেতাকে মারধরের বিষয়ে শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক আসাদুল্লা-হিল-গালিব বলেন, আমরা হরতালের দিন থেকেই ক্যাম্পাসে শক্তভাবে অবস্থান করছি। গত পরশুদিন ছাত্রদলের কয়েকজন নেতা-কর্মী দুইটি একাডেমিক ভবনে তালা দিয়েছিল। আমরা তা খুলে দিয়ে শিক্ষার্থীদের ক্লাস-পরীক্ষার ব্যবস্থা করেছি।
গালিব বলেন, ছাত্রদল নেতা মাহমুদুল মিঠুর নেতৃত্বে আজও কিছু নেতাকর্মী বিশৃঙ্খলা করার জন্য ক্যাম্পাসে এসেছিল। আমরা তাদের ধাওয়া দিয়ে বের করে দিয়েছি। যতক্ষণ শিক্ষার্থীদের ক্লাস-পরীক্ষা চলবে আমরা তাদের পাহারাদার হিসাবে ক্যাম্পাসে অবস্থান করব।
রাবি ছাত্রলীগের সভাপতি মোস্তাফিজুর রহমান বাবু বলেন, অবরোধ ও হরতালের নামে ছাত্রদলের সন্ত্রাসীরা ক্যাম্পাসে এসে গত কয়েকদিন ধরে অরাজকতা করছিল। আজকেও তারা ক্যাম্পাস অস্থিতিশীল করার চেষ্টা করছিল। তখন আমাদের নেতাকর্মীরা তাদের ধাওয়া করে বের করে দেয়।
আপলোডকারীর তথ্য

কামাল হোসাইন

হ্যালো আমি কামাল হোসাইন, আমি গাইবান্ধা জেলা প্রতিনিধি হিসেবে কাজ করছি। ২০১৭ সাল থেকে এই পত্রিকার সাথে কাজ করছি। এভাবে এখানে আপনার প্রতিনিধিদের সম্পর্কে কিছু লিখতে পারবেন।

রাজশাহীতে স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মাণ শীর্ষক আলোচনা সভা

ছাত্রদলের দুই নেতাকে রাবি ক্যাম্পাস থেকে মেরে তাড়ালেন ছাত্রলীগ

আপডেট সময় ০২:২৪:৪৯ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২ নভেম্বর ২০২৩
রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় (রাবি) শাখা ছাত্রদলের দুই নেতাকে মারধর করে ক্যাম্পাস থেকে বের করে দিয়েছেন শাখা ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা।
বৃহস্পতিবার (০২ নভেম্বর) বেলা সাড়ে ১১টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের অগ্রণী ব্যাংকের সামনে এ ঘটনা ঘটে।
মারধরের শিকার দুই নেতা হলেন-শাখা ছাত্রদলের আহ্বায়ক কমিটির সদস্য জাকির রেদোয়ান ও মহানগর ছাত্রদলের আওতাভুক্ত একটি ওয়ার্ডের সাধারণ সম্পাদক প্রিন্স। বর্তমানে তাদের রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
মারধরের বিষয়ে শাখা ছাত্রদলের আহ্বায়ক কমিটির সদস্য (দপ্তর) নাফিউল ইসলাম জীবন বলেন, ‘বিএনপির অবরোধকে সমর্থন জানিয়ে আমরা ক্যাম্পাসে মিছিল করছিলাম। এমন সময়ে ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা আমাদের ধাওয়া করে এবং আমাদের দুইজন নেতাকে ব্যাপক মারধর করে ক্যাম্পাস থেকে বের করে দেন।
এসময় বিএনপিপন্থী শিক্ষকদের সংগঠন জিয়া পরিষদও মিছিল নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের মেইন গেটের দিকে যায়। অন্যদিকে, রাবি ছাত্রলীগের একটি শোডাউনও একই জায়গায় অবস্থান করছিল।
ছাত্রদলের দুই নেতাকে মারধরের বিষয়ে শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক আসাদুল্লা-হিল-গালিব বলেন, আমরা হরতালের দিন থেকেই ক্যাম্পাসে শক্তভাবে অবস্থান করছি। গত পরশুদিন ছাত্রদলের কয়েকজন নেতা-কর্মী দুইটি একাডেমিক ভবনে তালা দিয়েছিল। আমরা তা খুলে দিয়ে শিক্ষার্থীদের ক্লাস-পরীক্ষার ব্যবস্থা করেছি।
গালিব বলেন, ছাত্রদল নেতা মাহমুদুল মিঠুর নেতৃত্বে আজও কিছু নেতাকর্মী বিশৃঙ্খলা করার জন্য ক্যাম্পাসে এসেছিল। আমরা তাদের ধাওয়া দিয়ে বের করে দিয়েছি। যতক্ষণ শিক্ষার্থীদের ক্লাস-পরীক্ষা চলবে আমরা তাদের পাহারাদার হিসাবে ক্যাম্পাসে অবস্থান করব।
রাবি ছাত্রলীগের সভাপতি মোস্তাফিজুর রহমান বাবু বলেন, অবরোধ ও হরতালের নামে ছাত্রদলের সন্ত্রাসীরা ক্যাম্পাসে এসে গত কয়েকদিন ধরে অরাজকতা করছিল। আজকেও তারা ক্যাম্পাস অস্থিতিশীল করার চেষ্টা করছিল। তখন আমাদের নেতাকর্মীরা তাদের ধাওয়া করে বের করে দেয়।